* ​ভারতীয় ভিসা আবেদন কেন্দ্রসমূহে অতিরিক্ত রুট অনুমোদন সেবা * ​৫ আগস্ট ২০১৮ থেকে ভারতীয় ভিসা প্রক্রিয়াকরণ ফি ৮০০ টাকা নির্ধারিত হবে * ​আইভিএসি চট্টগ্রাম এ ভিসার আবেদন পত্র ০৮ঃ ৩ ০ ঘন্টা থেকে ১২ঃ০ ০ ঘন্টা পর্যন্ত গ্রহণ করা হবে * জালিয়াতি বা জাল কল সম্পর্কে সতর্ক থাকুন * ​ভিসা আবেদনকারীদের জন্য উপদেষ্টা * ​ভিসা আবেদন পত্র জমা দেয়ার পূর্ব শর্ত সমূহ
অনবরত জিজ্ঞাসিত প্রশ্ন

প্র. অনলাইন ভিসা আবেদনপত্র কি সকল বিদেশী নাগরিকদের জন্য বাধ্যতামূলক?

উ: হ্যাঁ, ১৭ই আগষ্ট, ২০১০ থেকে অনলাইন ভিসা আবেদনপত্র সকল বিদেশী নাগরিকদের জন্য বাধ্যতামূলক।

প্র: অনলাইন নিবন্ধনের পর কোথায় আমার ভিসার আবেদন দাখিল করবো?

উ: ঢাকা বিভাগে বসবাসকারী বাংলাদেশী নাগরিকদের অবশ্যই তাদের নিকটবর্তী আবেদনকেন্দ্র যথা আইভ্যাক গুলশান,মতিঝিল,উত্তরা,মিরপুর এ জমা দিবেন, খুলনা বিভাগে বসবাসকারী বাংলাদেশী নাগরিকদের অবশ্যই খুলনা বরিশাল বিভাগে বসবাসকারী বাংলাদেশী নাগরিকদের অবশ্যই  বরিশাল ,ময়মনসিংহ বিভাগে বসবাসকারী বাংলাদেশী নাগরিকদের অবশ্যই ময়মনসিংহ অথবা যশোরে বিভাগে বসবাসকারী বাংলাদেশী নাগরিকদের অবশ্যই যশোরে এবং সিলেট বিভাগে বসবাসকারীদের অবশ্যই সিলেট আইভ্যাকে, চট্টগ্রাম বিভাগেবসবাসকারীদের অবশ্যই চট্টগ্রাম আইভ্যাকে, এবং রাজশাহী বিভাগে বসবাসকারীদের অবশ্যই রাজশাহী আইভ্যাকে যথাক্রমে আবেদন করতে হবে। অন্যান্য বিদেশী নাগরিকরা গুলশান আইভ্যাক বা চট্টগ্রাম আইভ্যাকে আবেদন করতে পারবে।

প্র: একজন আবেদনকারীর কতগুলো আবেদনপত্র এবং ছবি দাখিল করা প্রয়োজন?

উ: শুধুমাত্র একটি অনলাইন আবেদনপত্র এবং একটি সাম্প্রতিক রঙ্গীন ছবি দাখিল করা প্রয়োজন।

প্র: আইভ্যাকে কি আমাকে অনলাইন আবেদনপত্রে উল্লেখিত সময়েই আবেদনপত্র জমা দিতে হবে, নাকি ০৮:০০ ঘটিকা থেকে ১২:০০ ঘটিকার মধ্যে যেকোন সময় জমা দেয়া যাবে?

উ: এটাই যুক্তিযুক্ত যে আপনি অনলাইন আবেদনপত্রে নির্দেশিত সময়ে আবেদনপত্র জমা দেবেন। যাহোক, আপনার আবেদনপত্র, আবেদনের দিন ০৮:০০ ঘটিকা থেকে ১২:০০ ঘটিকার মধ্যে যেকোন সময় গ্রহণ করা হবে।

প্র: অনলাইনে আবেদনপত্র পূরণ করার সময় আমি একটি ভুল করেছি। অনলাইনে সংশোধন করা সম্ভব হবে কি?

উ: না। অনলাইনে সংশোধন করার কোন সম্ভাবনা নেই। আপনাকে পুন:রায় আবেদন করতে হবে।

প্র: আমি অনলাইনে নিবন্ধন করেছি কিন্তু কোন এপয়েন্টমেন্ট তারিখ পাইনি। এপয়েন্টমেন্টের তারিখ পেতে হলে আমার কী করা উচিত?

উ: এপয়েন্টমেন্ট পাওয়ার জন্য দয়া করে পরবর্তী কোন তারিখে আবার চেষ্টা করুন। এজন্যে, অনলাইন আবেদনপত্রের উপরের ডান দিকে অবস্থিত রি-প্রিন্ট অপশনে লগ-অন করুন। দয়া করে ওয়েব ফাইল নম্বর এবং জন্মতারিখ এর ঘর পূরণ করুন এবং সম্ভাব্য এপয়েন্টমেন্টের তারিখ নির্বাচন করুন।

প্র: আমি অনলাইনে নিবন্ধন করেছি এবং এপয়েন্টমেন্টের তারিখ পেয়েছি। কিন্তু অনলাইন আবেদনপত্রের প্রিন্ট আউট নিতে পারিনি। অনলাইন আবেদনপত্রের প্রিন্ট আউট কীভাবে পেতে পারি?

উ: দয়া করে অনলাইন আবেদনপত্রের উপরের ডান দিকে অবস্থিত রি-প্রিন্ট অপশনে লগ-অন করুন। দয়া করে

ওয়েব ফাইল নম্বর এবং জন্মতারিখ এর ঘর পূরণ করুন এবং অনলাইন আবেদনপত্রের প্রিন্ট আউট নিয়ে নিন।

প্র: আমি ভারত ভ্রমণের পরিকল্পনা করছি, কিন্তু তারিখের বিষয়ে এখনও মন স্থির করতে পারিনি। আমি কি অন্য তারিখের জন্য অনলাইনে আবেদন করতে পারি?

উ: একই ব্যক্তির একাধিক বুকিং এপয়েন্টমেন্টের তারিখ পাওয়ার ক্ষেত্রে অন্যান্য আবেদনকারীর প্রত্যাশাকে ব্যাহত করে। আপনি যদি যথেষ্ট কারণ ছাড়া তা করেন, তাহলে আপনার আবেদন গ্রহনের সম্ভাবনা রয়েছে।

প্র: অনলাইনে আমি ভুলে ঢাকার পরিবর্তে চট্টগ্রাম নির্বাচন করেছি। তথাপি কি আমি ঢাকা আইভ্যাকে আবেদনপত্র জমা দিতে পারবো?

উ: না। চট্টগ্রামে নিবন্ধিত অনলাইন আবেদনপত্র ঢাকায় গ্রহণযোগ্য হবে না।

প্র: আমি এপয়েন্টমেন্টের তারিখে ডকুমেন্ট দাখিল করতে পারিনি। এপয়েন্টমেন্টের তারিখের পর কি যেকোন সময় আমি ডকুমেন্ট দাখিল করতে পারবো?

উ: না, অনলাইন আবেদনপত্রে উল্লেখিত এপয়েন্টমেন্টের তারিখেই আপনাকে ডকুমেন্ট দাখিল করতে হবে।

প্র: আমার ভিসা আবেদনের অবস্থা জানার জন্য আমি কার সাথে যোগাযোগ করতে পারি?

উ: দয়া করে যে আইভ্যাকে আপনি ভিসার আবেদন দাখিল করেছেন, সেখানে টেলিফোন, ফ্যাক্স বা ই-মেইল এর মাধ্যমে যোগাযোগ রাখুন। অনুসন্ধানের সময় আপনার অবশ্যই স্টীকার নং অথবা পাসপোর্ট নম্বর উল্লেখ করতে হবে,দয়া করে এখানে ক্লিক করুন

ট্যুরিস্ট/ পর্যটক

প্র.১. পাসপোর্টে অপরিহার্য এনডোর্সমেন্ট করার জন্য কোন ফি ধার্য্য করার প্রয়োজন আছে কিনা?

উ: এনডোর্সমেন্ট করার জন্য বিবিধ কনস্যুলার সার্ভিস ফি ধার্য্য করা হতে পারে।

প্র.২. যেসব মেডিকেল পর্যটক অগ্রবর্তী চিকিৎসার জন্য নিয়মিত ভারতে আসে, তাদের কীভাবে সামাল দেয়া হবে?

উ: চিকিৎসার জন্য আগত ব্যক্তিগণের জন্য মেডিকেল ভিসার একটি পৃথক বিভাগ রয়েছে। চিকিৎসার জন্য আগত বিদেশী নাগরিকদের পর্যটন ভিসা নয়, শুধুমাত্র মেডিকেল ভিসা নিয়ে আসতে হবে।

প্র.৩. কূটনৈতিক গৃহস্থালির পারিবারিক সদস্য যারা কূটনৈতিক ভিসার যোগ্যতাসম্পন্ন নয় (যথা- বয়স্ক ছেলেমেয়ে বা গার্হস্থ্য অংশীদার), তাদের কীভাবে সামাল দেয়া হবে? 

উ: কূটনৈতিক গৃহস্থালির পারিবারিক সদস্য যারা কূটনৈতিক ভিসার যোগ্যতা সম্পন্ন নয়, তারা যোগ্য হলে   

“এন্ট্রি(এক্স)” ভিসা নিয়ে আসতে পারে। তারা যদি পর্যটন ভিসা নিয়ে আসে, তাদের উপর অধিশায়িত

নিষেধাজ্ঞা প্রযোজ্য হবে।

প্র.৪. বিভিন্ন দাতব্য প্রতিষ্ঠানের জন্য স্বেচ্ছাসেবক হিসাবে যারা ভারতে আসে, এমন ব্যক্তিদেরকে কীভাবে বিবেচনা করা হবে? তাদের অনেকেই ভারতে স্বেচ্ছাসেবক হিসাবে কাজ করার জন্য পর্যটন ভিসার বর্ধিত সময় নিয়ে অঞ্চলব্যাপী ঘুরে বেড়ায়।

উ: এই ক্ষেত্রে পর্যটন ভিসা যথাযথ ভিসা নয়। স্বেচ্ছাসেবক হিসাবে কাজের জন্য আগত যে কোন ব্যক্তি

“এন্ট্রি(এক্স)” ভিসার জন্য আবেদন করতে পারে।

সাধারণ

প্র : বাংলাদেশী পাসপোর্টধারীদের ভারতে ভ্রমণের জন্য কোন ভিসা ফি প্রদান করার প্রয়োজনীয়তা আছে কি?

উত্তর: না। যাহোক, আইভ্যাক “সাধারণ তথ্যের” অধীনে নির্দেশিত হারে ভিসা প্রসেসিং ফি ধার্য্য করে থাকে।

প্র : বাংলাদেশী পাসপোর্টধারী ব্যতীত অন্য কোন ব্যক্তির জন্য কোন ভিসা ফি প্রয়োজন আছে কি?

উত্তর: হ্যাঁ। সে ধরণের ব্যক্তিগণের ক্ষেত্রে বিভিন্ন জাতীয়তার জন্য ভারত সরকার দ্বারা অনুমোদিত নির্ধারিত সূচী অনুসারে ভিসা ফি প্রযোজ্য হবে, যদি না কোন এক বা একাধিক দেশ দ্বিপাক্ষিক চুক্তি অনুযায়ী ভিসা ফি পরিশোধের ক্ষেত্রে অব্যাহতি পায়। অনুসূচী দেখার জন্য, এখানে ক্লিক করুন।

প্র : একজন আবেদনকারী মোট কতগুলো ভিসার আবেদনপত্র পূরণ করতে পারবে?

উত্তর: প্রত্যেক আবেদনকারী মোট এক সেট ভিসার আবেদনপত্র পূরণ করতে পারবে।

প্র : একজন আবেদনকারীর ভিসার আবেদনপত্র কি অন্য কোন ব্যক্তি জমা দিতে পারবে?

উত্তর: শনাক্তকরণের প্রমাণসাপেক্ষে একজন আবেদনকারী সর্বোচ্চ ৫ জন পারিবারিক সদস্যের পক্ষ থেকে ভিসার আবেদনপত্র জমা করার অনুমতি পাবে। এ বিষয়ে অনুমোদিত পারিবারিক সদস্যরা হলেন স্বামী/স্ত্রী, সন্তান এবং পিতা-মাতা। মাননীয় সংসদ সদস্য ও বিচার বিভাগ; চেয়ারম্যান/ সিইও/ প্রতিষ্ঠিত কোম্পানীর ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং তাদের পারিবারিক সদস্য; এবং ৭০ বয়ো:সোর্দ্ধ যেকোন ব্যক্তির ভিসার আবেদনপত্র বৈধ “ই-টোকেন”বহনকারী যেকোন অনুমোদিত প্রতিনিধির মাধ্যমে জমা করা যেতে পারে।

প্র : ভারতীয় ভিসার জন্য আবেদন করার ক্ষেত্রে বাংলাদেশী প্রতিরক্ষা/ নিরাপত্তা কর্মীদের জন্য বিশেষ কোন প্রয়োজনীয়তা আছে কি?

উত্তর: বাংলাদেশী পাসপোর্টধারীদের সেবাকারী/ অবসরপ্রাপ্ত প্রতিরক্ষা/ পুলিশ/ নিরাপত্তা কর্মীদের জন্য ভিসার আবেদনপত্রের সাথে নির্ধারিত ফরম্যাটে একটি প্রো-ফর্মা/ নমুনা জমা দিতে হবে।

প্র : সীমাবদ্ধ বা সুরক্ষিত এলাকা কী?

উত্তর: ভারতে কিছু নির্দিষ্ট স্থান/ অঞ্চল আছে, যেগুলো সীমাবদ্ধ বা সুরক্ষিত জায়গা হিসাবে মনোনীত, যেখানে প্রবেশাধিকার সীমিত এবং বিশেষ অনুমতি প্রয়োজন হয়। ভিসা আবেদনকারীদের যারা এই সীমাবদ্ধ বা সুরক্ষিত এলাকা পরিদর্শন করতে ইচ্ছুক, তাদের একটি অতিরিক্ত ফরম পূরণ করতে হয়। এ ধরণের আবেদনপত্রের প্রসেসিং এর ক্ষেত্রে চার সপ্তাহ পর্যন্ত, বা কোন কোন ক্ষেত্রে আরও দীর্ঘ সময় লাগতে পারে।

ব্যবসা এবং কর্মসংস্থান

সাম্প্রতিক সপ্তাহগুলোতে, কাজ সম্পর্কিত পরিদর্শনের জন্য ভারত বিদেশীদের কী ধরণের ভিসা প্রদান করে, সে সম্পর্কে বিবিধ অনুসন্ধান উত্থাপিত হয়েছে। এটা ব্যাখ্যা করা হচ্ছে যে, মূলত দুই (২) ধরণের কাজ সম্পর্কিত ভিসা রয়েছে, যেমন:-

  •  “বি” ভিসা হিসাবে মনোনীত ব্যবসায়িক ভিসা
  •  “ই” ভিসা হিসাবে মনোনীত কর্মসংস্থান ভিসা

তথ্য, নির্দেশিকা এবং সংশ্লিষ্ট সকলের সম্মতির জন্য উপরোক্ত সমস্যাগুলোর ব্যাপারে জিজ্ঞাসা এবং তৎপ্রতি উত্তর এর রূপরেখা নীচে দেয়া হল:-

  • ব্যবসায়িক ভিসা প্রশ্ন

প্র.. ব্যবসায়িক ভিসা কী?

উত্তর: কোন বিদেশী নাগরিক, যে ভারতে শিল্প/ ব্যবসায়িক উদ্যোগ প্রতিষ্ঠা করতে অথবা শিল্প/ ব্যবসায়িক

উদ্যোগ সংস্থাপন করার সম্ভাবনার অন্বেষণ করতে, অথবা শিল্প পণ্য ক্রয়/ বিক্রয় করতে চায়, তার জন্য

ব্যবসায়িক ভিসা জমা করা হয়। এই ভিসা নিন্মলিখিত শর্ত সাপেক্ষে জমা করা হয়:-

  • আবেদনকারী পরিকল্পিত ব্যবসায়ের ক্ষেত্রে স্থায়ী ও দক্ষ একটি আত্মবিশ্বাসপূর্ণ আর্থিক অবস্থাসম্পন্ন ব্যক্তি।
  • আবেদনকারী টাকা ঋণ বা ক্ষুদ্র বাণিজ্যের কাজে, বা ভারতে পূর্ণকালীন চাকরীর বেতন পরিশোধ সংশ্লিষ্ট ইত্যাদি কাজে ভারত যাচ্ছে না।
  • এছাড়া প্রতিষ্ঠানের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা, বিশেষজ্ঞ, সফর পরিচালক ও ট্রাভেল এজেন্ট, প্রভৃতি ব্যক্তিবর্গ যারা সেসব পাবলিক সেক্টর প্রতিষ্ঠান দ্বারা প্রারব্ধ কাজসহ জাতীয় গুরুত¦সম্পন্ন পরিকল্পনা সম্পর্কিত কাজ, এবং বিদেশীদের ব্যবসায়িক সফর পরিচালনা বা এ সম্পর্কিত ব্যবসা, প্রভৃতি উদ্দেশ্যে ভারত যাচ্ছে, তাদের ক্ষেত্রেও ব্যবসায়িক ভিসার সুবিধা বাড়ানো হবে।
  • একজন বিদেশী নাগরিককে অন্যান্য সকল শর্তসমূহ, যেমন ট্যাক্স দায় পরিশোধ ইত্যাদি মেনে চলতে হবে।
  • ব্যবসায়িক ভিসা মঞ্জুরের বিষয়টি সময়ের সাথে সাথে অন্য বিদেশী দেশগুলোর সঙ্গে পারস্পরিক সম্পর্কের ভিত্তিতে ভারত সরকার কর্তৃক প্রদত্ত কোন নির্দেশাবলী সাপেক্ষ; :-২:- (৫) ব্যবসায়িক ভিসা অবশ্যই মূল দেশ থেকে অথবা বিদেশীর বাসস্থলের দেশ থেকে জারি করা হবে, যে নির্দিষ্ট দেশে আবেদনকারীকে ২ বছরের অধিক মেয়াদী স্থায়ী বসবাসের অনুমতি প্রদান করা হয়েছে।

প্র.. ব্যবসায়িক ভিসার জন্য কারা উপযুক্ত?

উত্তর:

  • বিদেশী নাগরিক যারা ভারতে শিল্প/ ব্যবসায়িক উদ্যোগ প্রতিষ্ঠা করতে অথবা শিল্প/ ব্যবসায়িক উদ্যোগ সংস্থাপন করার সম্ভাবনার অন্বেষণ করতে ভারতে যেতে চায়।
  • বিদেশী নাগরিক যারা শিল্প পণ্য বা বাণিজ্যিক পণ্য বা ভোগ্যপণ্য ক্রয়/ বিক্রয় করতে ভারতে আসে।
  • বিদেশী নাগরিক যারা প্রযুক্তিগত সভা/ আলোচনা করতে, ব্যবসায়িক সেবা সহায়তা প্রদানের জন্য বোর্ড সভা, সাধারণ সভায় উপস্থিত থাকতে ভারতে আসে।
  • বিদেশী নাগরিক যারা জনশক্তি নিয়োগের জন্য ভারতে আসে।
  • বিদেশী নাগরিক যারা ব্যবসায়ের অংশীদার এবং/ অথবা কোম্পানীর পরিচালক হিসাবে কাজ করছে।
  • বিদেশী নাগরিক যারা প্রদর্শনী সংক্রান্ত আলোচনা, প্রদর্শনী, বাণিজ্য মেলা, ব্যবসা মেলা, প্রভৃতিতে অংশগ্রহণ করতে ভারতে আসে।
  • বিদেশী ক্রেতা যারা ভারতের বিভিন্ন অবস্থানে সরবরাহকারী/ সম্ভাব্য সরবরাহকারীদের সাথে ব্যবসায়িক লেনদেন করতে, ভারত থেকে আহৃত পণ্য বা সেবা সম্পর্কিত মানের নির্ণয় বা নিরীক্ষণ করতে, বিবরণী দিতে, অর্ডার দিতে, আরও সরবরাহের বন্দোবস্ত করতে, প্রভৃতি কাজে আসে।
  • একটি চলমান প্রকল্পের সাথে যুক্ত সংক্ষিপ্ত সময়ের সফরে আগত বিদেশী দক্ষ/ বিশেষজ্ঞ ব্যক্তি, যারা কাজের অগ্রগতি পর্যবেক্ষণ, ভারতীয় গ্রাহকদের সাথে সভার কাজর্ক্রম পরিচালনা এবং/ অথবা উচ্চ পর্যায়ের কারিগরি নির্দেশ প্রদানের উদ্দেশ্যে আসে।
  • বিদেশী নাগরিক যারা কোন চুক্তি বা প্রকল্পের প্রকৃত সঞ্চালনের সময় পরিমাপ না করে প্রাক-বিক্রয় বা বিক্রয় পরবর্তী কার্যকলাপের জন্য ভারতে আসে।
  • বহুজাতিক কোম্পানী/ কর্পোরেট হাউসে কর্মরত বিদেশী প্রশিক্ষণার্থী যারা নির্দিষ্ট কোম্পানীর ভারতে অবস্থিত আঞ্চলিক শাখা অফিসে আভ্যন্তরীন প্রশিক্ষণের জন্য আসে। :- ৩ :-
  • আইজ্যাক এর স্পন্সরকৃত বিদেশী শিক্ষার্থী যারা কোন কোম্পানী/ শিল্প-কারখানায় প্রকল্প ভিত্তিক কাজে ইন্টার্নশীপের জন্য আসে।

প্র.: ব্যবসায়িক ভিসার মেয়াদ কতদিন থাকে?

উত্তর: মাল্টিপল এন্ট্রি সুবিধাসহ একটি ব্যবসায়িক ভিসার মেয়াদ ৫ বছর পর্যন্ত বা প্রয়োজন অনুযায়ী স্বল্প

সময়ের জন্য অনুমোদিত হয়। প্রতিবার পরিদর্শনে সংশ্লিষ্ট ভারতীয় মিশন কর্তৃক একটি স্থগিতাদেশ চুক্তির

নির্দেশনা দেয়া যেতে পারে।

প্র.: একটি ব্যবসায়িক ভিসার আবেদনপত্র বরাবর কী কী কাগজপত্র পেশ করার প্রয়োজন হয়?

উত্তর:

  • বিদেশী নাগরিকের একটি বৈধ ভ্রমণ নথি এবং একটি পুণ:প্রবেশ পারমিট থাকতে হবে, যদি দেশের সংশ্লিষ্ট আইনের অধীনে প্রয়োজন হয়।
  • পরিকল্পিত ব্যবসায়ের ক্ষেত্রে স্থায়ী আর্থিক অবস্থা এবং দক্ষতার প্রমাণপত্র।

 

  • কর্মসংস্থান ভিসা প্রশ্ন

প্র.. কর্মসংস্থান ভিসা কী?

উত্তর: কর্মসংস্থান ভিসা হল, যা কর্মসংস্থানের উদ্দেশ্যে ভারতে আসা আকাঙ্খী বিদেশীদের নি¤ড়বলিখিত

শর্তসাপেক্ষে প্রদান করা হয়:-

  • আবেদনকারী একজন দক্ষ এবং যোগ্যতাসম্পনড়ব পেশাদার বা একজন ব্যক্তি যে ভারতে সিনিয়র লেভেল, দক্ষতাসম্পনড়ব পদ যেমন প্রযুক্তিগত বিশেষজ্ঞ, সিনিয়র এক্সিকিউটিভ, বা ব্যবস্থাপকের পদ প্রভৃতিতে চুক্তি বা নিয়োগের ভিত্তিতে কোন কোম্পানী, প্রতিষ্ঠান, শিল্প-কারখানা, বা কোন বিষয়ে দায়িত্বপ্রাপ্ত, প্রভৃতি কাজের জন্য নিয়োগপ্রাপ্ত।
  • কর্মসংস্থান ভিসা এমন কোন চাকরীর ক্ষেত্রে মঞ্জুর করা হয়না, যেটার জন্য বৃহৎ সংখ্যার যোগ্যতাসম্পন্ন ভারতীয় পাওয়া যায়।
  • কর্মসংস্থান ভিসা নিত্যনৈমিত্তিক, সাধারণ বা সাচিবিক/ করণিক চাকরীর ক্ষেত্রে মঞ্জুর করা হয়না।
  • কর্মসংস্থান ভিসা অবশ্যই মূল দেশ থেকে অথবা বিদেশীর বাসস্থলের দেশ থেকে জারি করা হবে, যে নির্দিষ্ট দেশে আবেদনকারীকে ২ বছরের অধিক মেয়াদী স্থায়ী বসবাসের অনুমতি প্রদান করা হয়েছে।
  • প্রকল্প/ চুক্তি বাস্তবায়নের জন্য বিদেশী নাগরিক নিযুক্তকারী ভারতীয় কোম্পানী/ প্রতিষ্ঠান, ভারতে সেসকল বিদেশী নাগরিক থাকাকালীন তাদের আচরণ এবং ভিসার মেয়াদোত্তীর্ণ হওয়ার উপর সেসকল বিদেশী নাগরিকের প্রস্থানের ব্যাপারেও জিম্মাদার/ দায়ী থাকবে।
  • একজন বিদেশী নাগরিককে অন্যান্য সকল শর্তসমূহ, যেমন ট্যাক্স দায় পরিশোধ ইত্যাদি মেনে চলতে হবে।

প্র.. কর্মসংস্থান ভিসার জন্য কারা উপযুক্ত?

উত্তর: উপরোক্ত প্রশড়ব ৫খ তে উল্লেখিত শর্তসাপেক্ষে,নিন্মলিখিত ব্যক্তিগণ কর্মসংস্থান ভিসার জন্য যোগ্য বলে

বিবেচিত হবে:-

(১) বিদেশী নাগরিক যারা কোন প্রকল্প/ চুক্তি বাস্তবায়নের জন্য ভারতে আসে [সফরের সময়সীমা নির্বিশেষে]।

(২) বিদেশী নাগরিক যারা সংক্ষিপ্ত সময়ের সফরে ওয়ারেন্টি বা বার্ষিক রক্ষণাবেক্ষণের চুক্তির অংশ হিসাবে

কারখানা/ উৎপাদনকেন্দ্র বা যন্ত্রপাতি মেরামতের কাজে গ্রাহকের ঠিকানায় আসে।

(৩) বিদেশী প্রকৌশলী/ প্রযুক্তিবিদ যারা বিভিনড়ব উপকরণ/ যন্ত্রপাতি/ সরঞ্জাম সরবরাহের জন্য চুক্তির

পরিপ্রেক্ষিতে সেসব উপকরণ/ যন্ত্রপাতি/ সরঞ্জাম স্থাপন এবং চালু করার জন্য ভারতে আসে।

(৪) বিদেশী বিশেষজ্ঞ যারা ভারতীয় কোম্পানীর কর্মীদের প্রশিক্ষণের জন্য ভারতে আসে।

(৫) বিদেশী কর্মী যারা কারিগরী সহায়তা/ সেবা প্রদান, জ্ঞান স্থানান্তর, সেবা সরবরাহের কাজে নিয়োজিত,

যেটার জন্য বিদেশী কোম্পানীকে ভারতীয় কোম্পানী ফি/ রয়্যালটি প্রদান করে থাকে।

(৬) বিদেশী নাগরিক যারা চুক্তিভিত্তিক পরামর্শক হিসাবে ভারতে আসে ও যাদেরকে ভারতীয় কোম্পানী একটি

নির্দিষ্ট পারিশ্রমিক প্রদান করে, (মাসিক বেতন আকারে নাও হতে পারে)।

(৭) হোটেল, ক্লাব, বা অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের দেয়া কর্মসংস্থান চুক্তির সময়ব্যাপী নিয়মিত পরিবেশনা পরিচালনায়

নিয়োজিত বিদেশী শিল্পীরা।

(৮) কোচ/ প্রশিক্ষক হিসাবে নিয়োগ পেয়ে যেসব বিদেশী নাগরিক ভারতে আসে। :- ৫ :-

(৯) বিদেশী ক্রিয়াবিদ যাদের কোন ভারতীয় ক্লাব/ সংগঠন থেকে নির্দিষ্ট সময়ের জন্য চুক্তি দেয়া হয়।

(১০) স্বয়ং-নিযক্তু বিদেশী নাগরিক যারা প্রকৌশলী, চিকিৎসা, হিসাবরক্ষণ, আইনগত অথবা অন্যান্য অত্যন্ত

দক্ষ সেবা প্রদানের জন্য তাদের সক্ষমতায় স্বাধীন পরামর্শদাতা হিসাবে ভারতে আসে।

প্র.. কর্মসংস্থান ভিসার মেয়াদ কতদিন থাকে?

উত্তর: একজন বিদেশী নাগরিক যে কর্মসংস্থানের জন্য ভারতে আসে, তাকে বিদেশের ভারতীয় মিশন দ্বারা

প্রাথমিকভাবে এক বছরের পর্যন্ত কর্মসংস্থান ভিসা মঞ্জুর করা হয়। প্রম এক্সটেনশন, যদি প্রয়োজন হয়,

এমএইচএ দ্বারা প্রদান করা হয়। আরও এক্সটেনশন যদি প্রয়োজন হয়, তাহলে সংশ্লিষ্ট রাজ্য সরকার/

এফআরও দ্বারা ভিসা প্রদানের তারিখ থেকে সর্বোচ্চ পাঁচ বছর মেয়াদ পর্যন্ত অনুমোদন করা যেতে পারে।

কর্মসংস্থান ভিসা আগমনের তারিখ থেকে দুই সপ্তাহের মধ্যে সংশ্লিষ্ট এফআরআরও/ এফআরও দিয়ে নিবন্ধন

করার প্রয়োজন হয়।

প্র.৮. একটি ব্যবসায়িক ভিসার আবেদনপত্র বরাবর কী কী কাগজপত্র পেশ করার প্রয়োজন হয়?

উত্তর: (১) বিদেশী নাগরিকের একটি বৈধ ভ্রমণ নথি এবং একটি পুণ:প্রবেশ পারমিট থাকতে হবে, যদি দেশের

সংশ্লিষ্ট আইনের অধীনে প্রয়োজন হয়।

(২) বিদেশী নাগরিককে অবশ্যই ভারতের কোম্পানী/ প্রতিষ্ঠান দ্বারা তার কর্মসংস্থান বা চুক্তিপত্র বা নিযুক্তকরণ

প্রভৃতি প্রমাণ জমা দিতে হবে।

(৩) বিদেশী নাগরিককে অবশ্যই তার শিক্ষগত যোগ্যতা এবং পেশাগত দক্ষতার প্রমাণপত্র জমা দিতে হবে।

  • অনান্য প্রশ্ন

প্র.. বিদেশী নাগরিক যারা প্রকল্প বাস্তবায়নের কাজে ভারতে আসে, তাদের জন্য ব্যবসায়িক ভিসা মঞ্জুর করা যাবে কি?

উত্তর: বিদেশী নাগরিক যারা প্রকল্প/ চুক্তি বাস্তবায়নের কাজে ভারতে আসে, তাদের শুধুমাত্র কর্মসংস্থান ভিসা

নিয়েই আসতে হবে।

প্র.১০. প্রকল্প বাস্তবায়নের কাজে ব্যবসায়িক ভিসা নিয়ে ইতিমধ্যে ভারতে আছে, এমন বিদেশী নাগরিক কি ৩১.১০.২০০৯ এর পর তাদের ব্যবসায়িক ভিসা প্রসারিত করার অনুমতি পাবে?

 

উত্তর: না। একজন বিদেশী নাগরিক যে ব্যবসায়িক ভিসা নিয়ে ইতিমধ্যে দেশে আছে এবং প্রকল্প/ চুক্তি

বাস্তবায়নের কাজে নিযক্তু রয়েছে, তাকে ৩১.১০.২০০৯ এর মধ্যে দেশ ছেড়ে চলে যেতে হবে। :- ৬ :-

প্র.১১. প্রকল্প বাস্তবায়নের কাজে ব্যবসায়িক ভিসা নিয়ে ইতিমধ্যে ভারতে আছে, এমন বিদেশী নাগরিক কি দেশ ত্যাগ না করে তাদের ব্যবসায়িক ভিসাকে কর্মসংস্থান ভিসায় রূপান্তর করতে পারবে?

উত্তর: না।

প্র.১২. ব্যবসায়িক ভিসায় ভারতে আসা বিদেশী নাগরিকদের পারিবারিক সদস্যদের জন্য কোন ধরণের ভিসা মঞ্জুর করা হবে?

উত্তর: ভারতীয় মিশন ব্যবসায়িক ভিসা মঞ্জুরকৃত বিদেশী নাগরিকদের পারিবারিক সদস্যদের জন্য প্রদত্ত

স্বাভাবিক নিরাপত্তা পরীক্ষার সাপেক্ষে বিবেচনার ভিত্তিতে “এক্স” ভিসা মঞ্জুর করতে পারে [অর্থাৎ, একটি

নির্ভরশীল ভিসা], অন্যথায় পারিবারিক সদস্যরা এ ধরণের ভিসা মঞ্জুরের জন্য যোগ্যতাসম্পনড়ব হবেনা।

প্র.১৩. কর্মসংস্থানের উদ্দেশ্যে ভারতে আসা বিদেশী নাগরিকদের পারিবারিক সদস্যদের জন্য কোন ধরণের ভিসা মঞ্জুর করা হবে?

উত্তর: “ই” ভিসাপ্রাপ্ত বিদেশী নাগরিকদের পারিবারিক সদস্যদের জন্য, ভারতীয় মিশন “এক্স” ভিসা মঞ্জুর করতে পারে [অর্থাৎ, একটি নির্ভরশীল ভিসা]। “এক্স” ভিসার বৈধতা প্রধান ভিসা ধারকের ভিসার বৈধতার সাথে সমব্যাপ্ত হতে পারে অথবা আরও কম সময়ের জন্যে হতে পারে, যেমনটা প্রদত্ত স্বাভাবিক নিরাপত্তা পরীক্ষার সাপেক্ষে ভারতীয় মিশন দ্বারা প্রয়োজনীয় বলে বিবেচিত হবে, অন্যথায় পারিবারিক সদস্যরা এ ধরণের ভিসা মঞ্জুরের জন্য যোগ্যতাসম্পনড়ব হবেনা।

প্র.১৫. কোন বিদেশী কোম্পানী/ প্রতিষ্ঠান যার ভারতে কোন প্রকল্প অফিস/ অঙ্গপ্রতিষ্ঠান/ যৌথ উদ্যোগ/ শাখা অফিস নেই, তারা কি কোন বিদেশী নাগরিক/ বিদেশী কোম্পানীর কর্মীকে কর্মসংস্থান ভিসার জন্য স্পন্সর করতে পারবে?

উত্তর: না।

প্র.১৬. কোন ভারতীয় কোম্পানী/ প্রতিষ্ঠান যে, বিদেশী কোম্পানীতে কোন প্রকল্প বাস্তবায়নের জন্য চুক্তি-ভূষিত হয়েছে কিন্তু ভারতে তাদের কোন ভিত্তি নেই, তারা কি কোন বিদেশী কোম্পানীর কর্মীকে কর্মসংস্থান ভিসার জন্য স্পন্সর করতে পারবে?

উত্তর: হ্যাঁ।

প্র.১৭. কোন ভারতীয় প্রতিষ্ঠান/ সত্তা কোন কর্মসংস্থান ভিসার স্পন্সর হলে, এর মানে কি এই যে, ওই ভারতীয় প্রতিষ্ঠান/ সত্তাকে ওই ব্যক্তির আইনগত নিয়োগকর্তা হতে হবে?

উত্তর: না। 

প্র.১৮. বিদেশী ভাষা শিক্ষক/দোভাষীর জন্য কোন ধরণের ভিসা মঞ্জুর হবে?

উত্তর: কর্মসংস্থান ভিসা।

প্র.১৯. বিশেষজ্ঞ বাবুর্চীর জন্য কোন ধরণের ভিসা মঞ্জুর হবে?

উত্তর: কর্মসংস্থান ভিসা।

প্র.২০. উর্ধ্বতন ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা এবং/ অথবা বিদেশী সংস্থাগুলো দ্বারা নিযুক্ত বিশেষজ্ঞ, যারা কোন নির্দিষ্ট প্রকল্প/ ব্যবস্থাপনা কার্যভার নিয়ে কাজ করতে ভারতে স্থানান্তর হয়েছে, তাদের জন্য কোন ধরণের ভিসা মঞ্জুর হবে?

উত্তর: কর্মসংস্থান ভিসা।

মেডিকেল ভিসা

প্র.. মেডিকেল ভিসা প্রয়োজন, এমন আবেদনকারীদের জন্য কোন বিশেষ ব্যবস্থা আছে কি?

উত্তর: গুলশানের আইভ্যাক এ শুধুমাত্র জরুরী মেডিকেল ভিসা আবেদন গ্রহণের জন্য একটি মেডিকেল হেল্প ডেস্ক রয়েছে, যারা এমনকি নির্ধারিত এপয়েন্টমেন্ট তারিখের আগেই ভিসার আবেদন গ্রহণ করে থাকে।

প্র.. একজন রোগীর সাথে কতজন মেডিকেল এটেনডেন্ট যাওয়ার অনুমতি পায়?

উত্তর: একজন রোগীর সাথে ৩ জন পর্যন্ত মেডিকেল এটেনডেন্টকে ভিসা প্রদান করা যায়।

প্র.. পর্যটন ভিসায় চিকিৎসা করার অনুমতি পাওয়া যায় কি?

উত্তর: স্বাভাবিক পরিস্থিতিতে, পর্যটন ভিসায় চিকিৎসা করা অনুমোদনযোগ্য নয় এবং ভিসা নামঞ্জুর হতে পারে। যাহোক, কোন জরুরী ক্ষেত্রে, চিকিৎসার জন্য পর্যটন ভিসাকে মেডিকেল ভিসায় রূপান্তর করা যায়।

প্র.. আমি পর্যটন ভিসায় ভারতে ভ্রমণ করেছিলাম এবং জরুরী ভিত্তিতে চিকিৎসা করাতে হয়েছিল। এখন, আমি মেডিকেল ভিসার জন্য আবেদন করতে চাই। আমাকে কী করতে হবে?

উত্তর: মেডিকেল ভিসার জন্য আবেদনপত্র জমা করার সময়, দয়া করে ভারতে আপনার পূর্ববর্তী চিকিৎসা সহ সব ধরণের ডকুমেন্ট জমা দেবেন।

প্র.. মেডিকেল ভিসার জন্য সাধারণ ডকুমেন্টের সাথে অতিরিক্ত আর কী কী ডকুমেন্ট জমা করা প্রয়োজন?

উত্তর:

  • স্বীকৃত হাসপাতাল/ ডাক্তার এর কাছ থেকে রোগীর চিকিৎসাধীন অবস্থার বিশদ নির্দেশ সহকারে চিকিৎসার মূল সনদপত্র;
  • প্রথম ভ্রমণের ক্ষেত্রে, বিদেশে চিকিৎসা সুবিধা উপভোগের জন্য উপস্থিত ডাক্তারের কাছ থেকে সুপারিশ;
  • ভারতে অব্যাহতভাবে চিকিৎসার ক্ষেত্রে ভারতের উপস্থিত ডাক্তারের কাছ থেকে সুপারিশ;
  • হাসপাতালে ভর্তি বা দীর্ঘমেয়াদী চিকিৎসার জন্য, আর্থিক সম্পদের প্রমাণ।

প্র.. আমার রোগী ইতিমধ্যে ভারতে আছে। আমি মেডিকেল এটেনডেন্ট ভিসার জন্য আবেদন করতে চাই।

উত্তর: মেডিকেল এটেনডেন্ট ভিসা শুধুমাত্র রোগীর সাথেই ইস্যু করা হয়ে থাকে।

প্র.. এটা কি প্রয়োজনীয় যে, মেডিকেল এটেনডেন্ট কে রোগীর রক্তের সম্পর্কের কেউ হতে হবে?

উত্তর: না, এমন কোন বাধ্যবাধকতা নেই।

Frequently Asked Questions - FAQ's

Q: Where do I go to pay the Indian Visa Application fee?

A: Visit this page/link from your browser: https://payment.ivacbd.com You will get a Form that includes 4 tabs: 1) Application Info, 2) Personal Info, 3) Overview and 4) Payment. Fill up the empty fields following the guidelines available on the page and finally click ‘Pay Now’ to make the payment by selecting your chosen payment option.

 

Q: Can I see/fill up the next tabs before completing the first ones?

A: No, you need to fill in the empty fields of the tabs sequentially. You can click the ‘Save and Next’ under a tab after completing the fields and then you can go to the next tab. However, once you complete filling up the fields of a tab and go to the next one, you can go back to the earlier tab(s) for revision or editing.

 

Q: What information do I need to have before making the payment?

A: You need to have the WEB FILE NUMBER OF YOUR INDIAN VISA APPLICATION. Once you have submitted your Visa application you would get the Web File Number from IVAC.

 

Q: How do I select and what should I enter in Application Info?

A: Follow the below step-by-step process to complete tab-1: Application Info:

  • SELECT A MISSION: From the drop-down list select the Mission under which you have applied for the Visa.
  • In the next two boxes enter your WEB FILE NUMBER. Both entries must be exactly same.
  • SELECT YOUR IVAC CENTER: From the drop-down list, select the IVAC center under which you have applied for Indian Visa. As soon as you select the IVAC center name, the AMOUNT in BDT below will be automatically populated.
  • VISA TYPE: Select the Visa type that you have applied for from the drop-down list.
  • PASSPORT NUMBER: Enter your passport number accurately.
  • Save and Next: This button will be activated only after you have completed the above fields. Click on this button to proceed to the next tab.

 

Q: How do I select and what should I enter in Personal Info?

A: Follow the below step-by-step process to complete tab-2: Personal Info:

  • Enter your FULL NAME (as it appears in your passport), EMAIL ADDRESS and MOBILE NUMBER.
  • Select an APPOINTMENT TYPE from the drop-down list. If you select WALK-IN, then you are done with this tab. However, if you select DATE, another box will appear where you will need to select an APPOINTMENT DATE from the calendar as given to you from IVAC.
  • After done with the above steps, click on the ‘Save and show overview’ button below.

 

What is the Overview tab? What to do here?

A: The tab-3: ‘Overview’ provides you a summary of the information you have entered in the first two tabs. Here you cannot or do not need to enter anything. This is to review if you have provided all the information accurately in the earlier tabs. If you find any mistake and want to edit any field, click on ‘EDIT YOUR INFORMATION’ link below. You can edit the fields in the previous tabs and come back to Overview again. After done reviewing, click on ‘Confirm and move for payment’ button below. You must click to tick the checkbox beside ‘I agree to the Terms of Service’ to proceed.

 

What if I don’t check the ‘I agree to the Terms of Service’ checkbox?

A: If you don’t check the ‘I agree to the Terms of Service’ checkbox, you will not be allowed to proceed to Payment. If you click on ‘Confirm and move for payment’ leaving the mentioned box unchecked, an Error message prompt will appear. You must check this box to proceed forward. You can view the ‘Terms of Service’ by clicking on it.

 

Q: How can I make the payment?

A: After you have completed the Application Info and Personal Info tabs, and finally clicked the ‘Confirm and move for payment’ button, you will be redirected to the ‘Payment’ page. Here you will see multiple payment options such as CARDS, INTERNET BANKING, MOBILE FINANCIAL SERVICES (MFS) and OTHERS.

Select your desired payment option. As soon as you select the payment option (e.g. Visa or MasterCard or bKash or Internet banking), you will see the total ‘Payable Amount’ at the right side.

Complete the Captcha challenge by entering the letters and/or numbers you see under ‘Verify you are human’ and then click on ‘Pay Now’ button. This will take you to the ‘payment page’. After entering the required information/data in the boxes click on ‘Pay’. After transaction is successfully processed, you will be informed and receive an invoice in your email. A confirmation SMS will also be sent to the mobile number you have provided.

 

Q: Can I edit my information before making the payment?

A: Yes, you can edit or correct any information provided in the Application Info or Personal Info tabs before you click ‘Pay Now’ on the ‘Payment’ tab. Click on the ‘EDIT YOUR INFORMATION’ link to edit your information under ‘Overview’ tab. However, once you have clicked on the ‘Pay Now’ button and have been redirected to the payment page, no more editing is possible.

 

Q: How do I know if my payment was successful or not? How can I be confirmed?

A: If you have correctly entered your card details, internet banking or mobile banking information and then clicked on the ‘Pay’ button, then if the payment was successful, a payment confirmation page will appear with a ‘CONGRATULATIONS’ title along with a Thank you message mentioning the amount paid and respective transaction ID. You can store the Transaction ID for reference purpose. Besides that, you will get an SMS notification in your mobile number and an invoice will be sent to your Email address. You can print or download the invoice for your reference later.

 

Q: What is the ‘Convenience Fees’ in the Payment page? Why this is charged from me?

A: The Convenience Fee is a nominal amount charged from the applicant for making payment through online. This amount is charged from you since we have to bear expenditure to make this service available to you by investing in Information Technology infrastructure. Through the online payment service you gain extra convenience of making easy and hassle-free payment from anywhere, anytime.

 

Q: What are the different payment options available for me?

A: There are multiple payment methods/channels/options available in the Payment page to pay the Indian Visa Application Fee. Payment is authorized at the time you select your desired payment option and click ‘Pay Now’. Unless otherwise changed by IVAC, SBI and/or SSL Wireless, you can select the following payment methods:

  • All Debit and Credit Cards of Visa, MasterCard and American Express, all proprietary cards like DBBL Nexus, Q-Cash, Fast Cash, etc.
  • All Internet Banking options such as Citytouch, Bank Asia, Islami Bank Bangladesh and Mutual Trust Bank Internet Banking.
  • All Mobile Financial Services (MFS), SMS Banking or Mobile Banking such as Rocket, bKash, MyCash, Mcash, and AB Direct.

 

Note: Only locally issued payment instruments (such as, locally issued and/or created credit cards, debit cards, proprietary cards, prepaid cards, net banking, mobile or electronic wallets, etc.) will be accepted in the payment application.

 

Q: Can I check my payment status? How?

A: Yes, you can check your payment status by clicking on CHECK PAYMENT STATUS button at the top-right corner of the page. Enter your Web File Number, Passport Number, the information appearing in the captcha challenge and then click on ‘Check Payment’ button. Your Payment Status, either ‘PAID’ or ‘UNPAID’ will appear with relevant information.

 

Q: What is the ‘Checked Status’ shown with my Payment Status?

A: Checked Status means if you have submitted all the required documents along with the application after making the payment. If you have done so, it will show you ‘CHECKED’. Otherwise it will show ‘UNCHECKED’.

 

Q: How long can I check my Payment and Checked Status?

A: You can check your Payment Status along with Checked Status for 15 (fifteen) days after you have made the payment. After 15 days, this information will not be available anymore.

 

Q: What is Appointment Date?

A: Appointment Date is the date that you have selected in the APPOINTMENT TYPE under the Personal Info tab. This is the date you have been given by IVAC to visit the center with your documents and payment receipt.

 

Q: Why is my Appointment Date field empty in the Payment Status page?

A: If you have selected ‘WALK-IN’ in the APPOINTMENT TYPE under the Personal Info tab, the APPOINTMENT DATE field appears empty in the ‘Your Payment Status’ page. This means you have no fixed date to visit IVAC. However, as per policy, you must visit and submit documents within 3 (three) days after making the payment.

 

Q: What happens if I do not visit the IVAC in 3 days after making the payment as WALK-IN?

A: If you have selected ‘WALK-IN’ in the APPOINTMENT TYPE under the Personal Info tab, while making the payment, you must visit the IVAC within next 3 days. If you fail to visit the IVAC and submit documents within 3 days, your payment will be void and the amount paid will not be refunded. You will have to pay the Visa Fee again for a new appointment.

 

Q: How can I get a refund?

A: Once a payment has been successful, there is no option for refund. There is no direct refund option available to the applicant once a transaction has been settled between the parties. However, if any payment is unsuccessful at the payment gateway (SSLCOMMERZ) end but amount has been deducted by your bank/provider then we recommend you to communicate with your bank/provider.

 

Q: Can I make payment for me and my family members or tour partners together? How many Visa fees can I pay at one go?

A: Yes, you can make bulk/multiple payment in a single transaction.

You can add up to 7 Visa applicants’ Web File Numbers and pay the fees in one go. You would need to fill in the different fields like Web File Number, Passport Number, Mobile Number etc. separately. Click ‘ADD ANOTHER WEB FILE NUMBER’ button under ‘Payment’ tab to add multiple applicants’ information and proceed to make the payment altogether in a single transaction. In case of multiple applicants' payment, there will be an item wise invoice generated and sent to your Email address.

 

Q: What do I do if there is any error or my internet connection is disconnected in the middle of the process?

A: If the internet connection is disrupted before proceeding to payment option, you have to refill the information from the beginning. For any error during the payment process due to internet connection disruption, you can check your payment status by clicking on CHECK PAYMENT STATUS button at the top-right corner of the page. If you still have any confusion, please send us an email to: ivac@sslwireless.com for further investigation.

 

Q: I am not being able to pay with my card or internet banking or wallet. What can I do?

A: If you are not able to pay with your card, please contact with your respective bank to find out whether your card or internet banking or wallet is enabled for online e-Commerce transaction and whether it is connected to the payment services of SSLCOMMERZ. If not, you can request your bank/provider to enable it for online e-Commerce transaction in this site.

Design & Development By: